Web Development

ওয়েবসাইট থেকে আয় করার উপায়

Ways to make money from websites

অনলাইনে করার অনেক মাধ্যম রয়েছে। তার মধ্যে ওয়েবসাইট থেকে আয় করা জনপ্রিয় একটি উপায়। এই টিউনে আমরা ওয়েবসাইট থেকে আয় করার কিছু উপায় জানব।

ইন্টারনেট দুনিয়ায় কোটি কোটি ওয়েবসাইট আছে। যার মধ্যে কিছু ওয়েবসাইটে আমরা নিয়মিত ভিজিট করে থাকি। এসব ওয়েবসাইট এমনি এমনি খোলা হয়নি। আর কোন প্রকার প্রফিট ছাড়া কোন ওয়েবসাইট ইন্টারনেট দুনিয়ায় সচল থাকে না। ইন্টারনেট দুনিয়ায় যত ওয়েবসাইট আছে তার মধ্যে বেশীরভাগই ব্লগ সাইট। এসব ব্লগ ওয়েবসাইট আমাদের যেমন কাজে আসছে তেমনি ব্লগ সাইটের মালিকেরা অর্থ উপার্জন করছে।

অনলাইনে আয় করতে চান? অনলাইনে আয় করার উপায়সমূহ জানতে এই টিউনটি পড়ুন – অনলাইনে আয় করার ৫ টি উপায়

আপনি যেহেতু এই আর্টিকেলটি পড়তিছেন তাহলে নিশ্চয়ই আপনার একটি ওয়েবসাইট আছে যেটি থেকে আপনি আয় করতে চাচ্ছেন। অথবা, আপনি অনলাইন থেকে আয় করার জন্য এই আর্টিকেলটি পড়তিছেন। তো চলুন ওয়েবসাইট থেকে আয় করার উপায়গুলো জেনে নেওয়া যাক।

ওয়েবসাইট থেকে আয় করার উপায়

ওয়েবসাইট থেকে আয় করার জন্য সেরা কিছু উপায় সম্পর্কে আমরা এখন আলোচনা করব। আপনার যদি একটি ওয়েবসাইট থাকে তাহলে এই উপায়গুলো আপনি কাজে লাগতে পারেন।

বিজ্ঞাপন বসিয়ে

বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করা সকল ওয়েবসাইটের মালিকের কাছে পছন্দনীয়। বেশীরভাগ ওয়েবসাইটের মালিকেরা তাদের ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করে থাকে।

আরো পড়ুন

  1. গুগল এডসেন্স কি? গুগল এডসেন্স নিয়ে বিস্তারিত জানুন
  2. গুগল এডসেন্স কত ক্লিকে কত টাকা দেয়?
  3. এডসেন্সের জন্য এপ্লাই করার আগে যে কাজগুলো করবেন

বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করার জন্য আপনাকে ভালো মানের কিছু এডস নেটওয়ার্কে আবেদন করতে হবে। আপনার আবেদন গ্রহণ হলে তারা আপনাকে এডস/ বিজ্ঞাপন দেখানোর জন্য কিছু কোড দিবে। সেই কোডগুলো আপনাকে আপনার ওয়েবসাইটে বসাতে হবে। আর সেখান বিভিন্ন ধরণের বিজ্ঞাপন দেখাবে। কেউ যদি সেখানে ক্লিক করে তবে আপনি কিছু টাকা পাবেন। ক্লিক ছাড়াও কিছু কিছু এডস নেটওয়ার্ক ইম্প্রেশন এর উপর ভিত্তি করে টাকা দিয়ে থাকে। যেমন ধরুন ১০০০ ইমপ্রেশনে ১ ডলার পাবে।

এডস নেটওয়ার্কের বিজ্ঞাপন প্রদর্শন ছাড়াও আপনি ছোট-বড় কোম্পানির কাছে তাদের পণ্যের বিজ্ঞাপন আপনার ওয়েবসাইটে দেখানোর জন্য আবেদন করতে পারবেন। তাছাড়া আপনার ওয়েবসাইট জনপ্রিয় হলে সেই কম্পানিগুলো তাদের পণ্যের বিজ্ঞাপন আপনার ওয়েবসাইটে দেখানোর জন্য অফার করবে। এই পদ্বতিতে ক্লিক বা ইম্প্রেশন কোন বিষয় না। নির্দিষ্ট কিছু দিনের জন্য আপনার ওয়েবসাইট নির্দিষ্ট কিছু জায়গায় (যেমনঃ হেডার সেকশন, ফুটার, সাইডবার ইত্যাদি) বিজ্ঞাপন প্রদর্শনের জন্য টাকা পাবেন।

এভাবে বিজ্ঞাপন আপনি আপনার ওয়েবসাইট থেকে আয় করতে পারেন। অন্যান্য সব ওয়েবসাইটের মালিক এই পন্থা অবলম্বন করে ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করার জন্য।

অ্যাফিলিয়েট

অ্যাফিলিয়েটের মাধ্যমে ওয়েবসাইট থেকে আয়
অ্যাফিলিয়েটের মাধ্যমে ওয়েবসাইট থেকে আয়

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কথাটি শুনেছেন? অনলাইন থেকে আয় করার জন্য দারুন একটি উপায়। বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করার পাশাপাশি অ্যাফিলিয়েট করে ভালো পরিমাণ আয় করা সম্ভব। আপনার ব্লগ সাইটি যে নিশ ভিত্তিক আপনি চাইলে সেই নিশের অ্যাফিলিয়েট করতে পারেন। অনেক ব্লগাররাই/ ওয়েবসাইটের মালিকেরা অ্যাফিলিয়েট করেই তাদের ওয়েবসাইট থেকে আয় করছে। কারণ, এই পদ্বতিতে বিজ্ঞাপন বসিয়ে আয় করার চাইতে অনেক বেশী আয় করতে পারবেন।

অ্যাফিলিয়েট পদ্ধতিতে আপনাকে কোন কম্পানির প্রোডাক্ট আপনার ওয়েবসাইটের মাধ্যমে বিক্রি দিতে হবে। আপনি চাইলে ইউটিউব, ফেসবুক ইত্যাদি থেকে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করতে পারবেন যেহেতু আমরা ওয়েবসাইট থেকে আয় করার কথা উপায় বলছি তাই ওয়েবসাইটের মধ্যেই এখন সীমাবদ্ধ থাকে যাক। আপনি যেকোন ধরনের প্রোডাক্টের অ্যাফিলিয়েট করতে পারেন সেটা কোন কাপড়-চোপড়ের হতে পারে বা কোন গ্যাজেডকে নিয়ে হতে পারে। কিংবা, হোস্টিং কম্পানির অ্যাফিলিয়েট হতে পারে।

আপনি যখন কোন কোম্পানির অ্যাফিলিয়েটের জন্য সাইন আপ করবেন তখন সেই কোম্পানি আপনাকে এক বা একাধিক লিংক দিবে। আপনি যখন সেই কোম্পানির কোন প্রোডাক্ট বিক্রি করে দিবেন (মানে, আপনার অ্যাফিলিয়েট লিংকে ভিজিট করে কেউ যদি কোন প্রোডাক্ট কিনে) তাহলে আপনি নির্দিষ্ট কিছু কমিশন পাবেন।

আপনাকে আমি উদাহণের মাধ্যমে বোঝাচ্ছি। ধরুন আপনি কোন হোস্টিং কোম্পানির অ্যাফিলিয়েটের জন্য সাইন আপ করলেন। সেখানকার বিভিন্ন প্রোডাক্টের মধ্য থেকে একটি প্রোডাক্ট বিক্রির জন্য লিংক সংগ্রহ করলেন। এখন আপনি সেই হোস্টিং কম্পানির লিংক সংগ্রহ করার পর সেই প্রোডাক্টটি নিয়ে একটি আর্টিকেল আপনার ওয়েবসাইট পাবলিশ করলেন এবং সেই প্রোডাক্টটি কেনার পরামর্শ দিলেন আর সেই লিংকটা ওখানে দিয়ে দিলে। এখন আপনার ওয়েবসাইটের কোন ভিজিটর যদি সেই আর্টিকেলটি পড়ার পর ওই প্রোডাক্টটি কেনে তাহলে আপনি নির্দিষ্ট কিছু কমিশন পাবেন। এভাবে ওই লিংকে গিয়ে যতজন কিনবে আপনি তত আয় করতে থাকবেন।

স্পন্সরকৃত পোস্ট

ওয়েবসাইট থেকে আয় করার সহজ একটি উপায় হলো স্পন্সর পোস্টের মাধ্যমে আয় করা। এখানে আপনাকে কোন খাটা খাটি করতে হবে না। আর্টিকেল লিখতে হব না। স্পন্সর পোস্টের জন্য আপনাকে একটি পোস্ট আপনার ওয়েবসাইটে পাবলিশ করতে হবে এবং সেজন্য আপনি পেমেন্ট পাবেন। তবে ক্ষেত্র বিশেষে আপনাকে নিজে থেকে লিখে সেটি আপনার ওয়েবসাইটে পাবলিশ করতে হবে।

যারা স্পন্সর পোস্ট করারা জন্য দেয় তাদের উদ্দেশ্য মূলত দুইটি!

  1. ব্যাকলিংক
  2. কোন প্রোডাক্ট প্রমোশন

স্পন্সরকৃত পোস্ট পাওয়ার জন্য অবশ্য আপনার ওয়েবসাইটের ডোমেইন অথোরিটি (যাকে সংক্ষেপে DA বলা হয়) বেশি থাকতে হবে। আপনার ওয়েবসাইটের ডোমেইন অথোরিটি যত বেশি থাকবে স্পন্সর পোস্ট পাওয়ার সম্ভাবনা তত বেশী থাকবে। ডোমেইন অথোরিটি ছাড়াও আপনার ওয়েবসাইটের ভিজিটর অনেক বেশী হতে হবে।

স্পন্সর পোস্ট করলে আপনার ওয়েবসাইটের তেমন কোন সমস্যা হবে না। তবে স্পন্সর পোস্টের আগে পোস্টের বিষয় বস্তু দেখে নিবেন। অবৈধ কোন টপিক নিয়ে কোন কিছু সাইটে পাবলিশ না করাই ভালো।

নিজের কোন প্রোডাক্ট বিক্রি

আপনি চাইলে আপনার ওয়েবসাইট নিজের তৈরি কোন প্রোডাক্ট বিক্রি করতে পারবেন। এতে করে অন্য সব আয়ের উপার থেকে বেশি আয় করতে পারবেন।

তবে, আপনার ওয়েবসাইটি যে নিশের সেই রিলেটেড প্রোডাক্ট বিক্রি করার চেস্টা করবেন। অন্য নিশের প্রোডাক্ট বিক্রি করলে তা আপনার ওয়েবসাইটে খারাপ প্রভাব ফেলতে পারে।

ধরুন আপনি গ্যাজেড/ ইলেকট্রনিক জিনিসপাতি নিয়ে আপনার ওয়েবসাইটি অথবা এইসব নিয়ে আপনি আপনার ওয়েবসাইটে লেখালেখি করেন। সেক্ষেত্রে আপনি কোন ইলেকট্রনিক গ্যাজেড বা কোন প্রজেক্ট তৈরি করে ভালো বিক্রি করতে পারেন। এজন্য অবশ্যই আপনার ওয়েবসাইটটিকে বিশ্বস্ত হতে হবে এবং পর্যাপ্ত ভিজিটর থাকতে হবে।

কোন কিছু শিখিয়ে

এটাকে আপনি কোর্স বিক্রি করে বলতে পারেন। আপনি যদি একজন ভালো মানের ওয়েব ডেভেলপার, গ্রাফিক্স ডিজাইনার, ডিজিটাল মার্কেটার ইত্যাদি হয়ে থাকে তাহলে আপনি এসবের কোর্স বানিয়ে আপনার ওয়েবসাইট থেকে বিক্রি করে আয় করতে পারবেন।

এসব কোর্স বিক্রি করে আয় করার জন্য আপনাকে অবশ্যই এক্সপার্ট হতে হবে এবং মোটামুটি লেভেলের জনপ্রিয় হতে হবে।

উপসংহার

এই উপায়গুলোন ব্যবহার করে একটি ওয়েবসাইট থেকে আয় করা সম্ভব। আর এই উপায়গুলোই বর্তমানে সবচেয়ে সেরা উপায়।

আপনি চাইলে আপনার ওয়েবসাইট থেকে এই সব গুলো উপায় দিয়ে আয় করতে পারবেন। তবে শুধু আয়ের চিন্তা করলে হবে না। আপনার ওয়েবসাইটের ভিজিটররা আপনার ওয়েবসাইট থেকে কি চায় তা জেনে তাদের চাহিদা পূরণ করতে হবে। যদি আপনি আপনার ওয়েবসাইটের ভিজিটরের চাহিদা পূরণ করতে না পারেন তবে ওয়েবসাইট তৈরি করে কখনো টিকে থাকতে পারবেন না।

আপনার ওয়েবসাইট যদি নতুন হয় তবে শুরুর দিকে আয়ের চিন্তা মাথা থেকে ঝেড়ে ফেলুন। সাইটের ভিজিটরদের কোয়লিটি সস্পন্ন কিছু উপহার দেওয়ার চেস্টা করুন।

ওয়েবসাইট তৈরি করলেই যে হাজার হাজার, লাখ লাখ টাকা ইনকাম করতে পারবেন না কিন্তু নয়। ওয়েবসাইট তৈরি করার আগে সব দিক দেখে শুনে কাজ করতে হবে। যদি আপনি আপনার ওয়েবসাইট থেকে ভালো কিছু ভালো কিছু উপহার দিতে পারেন তবেই আপনার ওয়েবসাইটে ভিজিটর আসবে। আর ভিজিটর আসলে আপনি আপনার ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম শুরু করতে পারবেন। এধরনের আরো অনেক টিউন পেতে টিউনবিএন.কম এর সাথেই থাকুন।

Imran Hossan

Everyone wants Happiness, Nobody wants Pain, But you can't make a Rainbow without a little Rain.

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button

Adblock Detected

Hey Dear!! Thank you for visit on TuneBN. Please Disable your AD Blocker to continue browsing.